বাংলাদেশের ভলিবল স্বপ্ন

ভলিবলের আন্তর্জাতিক সংস্থা এফআইভিবি এবং এশিয়ান ভলিবল কমিটি ভলিবলকে ছড়িয়ে দিতে চাচ্ছে বাংলাদেশে। পুরো বিশ্বেই খেলাটিকে জনপ্রিয় করতে কয়েকটি জোনে ভাগও করা হয়েছে। এশিয়াকে ভাগ করা হয়েছে ছয়টি ভাগে। এর মধ্যে বাংলাদেশ পড়েছে সেন্ট্রাল জোনে। এই অঞ্চলের দেশগুলো নিয়েই ৯ জাতির ভলিবল টুর্নামেন্ট আয়োজন করার দায়িত্ব পেয়েছে বাংলাদেশ। ভুটান সরে দাঁড়ানোয় টুর্নামেন্ট হবে আট দলের। এ দেশে এত বড় ভলিবল টুর্নামেন্ট এর আগে কখনও হয়নি। এই মানের টুর্নামেন্ট খেলেনি বাংলাদেশ দলও। তাই টুর্নামেন্টটি ফেডারেশন এবং খেলোয়াড়, সবার জন্যই বেশ গুরুত্বপূর্ণ।

টুর্নামেন্টের জন্য বাজেট রাখা হয়েছে ৮০ লাখ টাকা। তবে দলগুলোর জন্য কোন প্রাইজমানি নেই। চ্যাম্পিয়ন দলের বিশ্ব র্যাংখকিংয়ে এগিয়ে যাবার সুযোগ থাকছে। তাই ২২০ দলের মধ্যে ১৬৬তম বাংলাদেশের সামনে সুযোগ র্যাংেকিংটাকে আরেকটু ভালো করার। গত পাঁচ বছর কোন আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট খেলেনি বাংলাদেশ ভলিবল দল। পুরোপুরি নতুনভাবে দলটা সাজানো হয়েছে অভিজ্ঞতা ও তারুণ্যের সমন্বয়ে। তিন মাসের প্রস্তুতি থাকায় ঘরের মাঠে অনুষ্ঠেয় এশিয়ান সেন্ট্রাল জোন মেনস সিনিয়র ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপে চ্যাম্পিয়ন হবার স্বপ্ন দেখছেন খেলোয়াড়রা।

২৩-২৮ মে অনুষ্ঠেয় এই টুর্নামেন্টে বাংলাদেশ ছাড়াও খেলবে নেপাল, উজবেকিস্তান, তাজিকিস্তান, তুর্কমেনিস্তান, কিরগিজস্তান, মালদ্বীপ ও আফগানিস্তান। সবগুলো খেলাই হবে মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে।

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য করুন